গ্যাস সংকটে নতুন প্রকল্পের অনুমোদন-শ্রীঘ্রই টেন্ডার আহবান,কেজিডিসিএল ৩৮নং ওয়ার্ডে গ্যাস সংকট নিরসনে কার্যকর ব্যবস্থা নিনঃ সুজন

হোসেন বাবলা:১৪ফেব্রুয়ারি,চট্টগ্রাম

নগরীর ৩৮নং দক্ষিণ মধ্য হালিশহর ওয়ার্ড এলাকার অব্যাহত গ্যাস সংকট নিরসন ও নগরীতে নতুন সংযোগ চালু রাখার জন্য গ্যাস সংকট নিরসন নাগরিক কমিটির প্রধান উপদেষ্টা ও মহানগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি আলহাজ্ব খোরশেদ আলম সুজন গত১২ ফেব্রুয়ারী সোমবার সকাল ১১টায় কর্ণফুলী গ্যাস ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানী লিমিটেড (কেজিডিসিএল) এর নব নিযুক্ত ব্যবস্থাপনা পরিচালক আলী মোঃ আল-মামুন এর সাথে তাঁর দফতরে স্বাক্ষাত করেন।

সুজন ৩৮নং ওয়ার্ডে নিয়মিত গ্যাস সরবরাহ না পাওয়া, গ্যাসের চাপ বৃদ্ধির জন্য জরুরী ভিত্তিতে একটি ডিআরএস মেশিন স্থাপনের অনুরোধ জানান। এই ওয়ার্ডের যান্ত্রিক সংকট নিরসনের আশায় বিগত আট বছর ধরে অনেক দেন দরবার হয়েছে। গ্যাস স্বল্পতার কারণে এসব এলাকার মানুষের দৈনন্দিন গৃহস্থালী কাজে মারাত্নক বিঘ্নঘটছে। বিঘ্ন ঘটছে বিভিন্ন শিল্পকারখানার উৎপাদনেও। বছরের পর বছর এই ওয়ার্ডের জনসাধারণ কিঞ্চিত পরিমান গ্যাস ব্যবহার করে পর্যাপ্ত গ্যাস বিল পরিশোধ করে আসছে। সুজন আবাসিক গ্যাস সংযোগ প্রদানে সকল প্রকার প্রতিবন্ধকতা অপসারনে ব্যবস্থাপনা পরিচালকের সহযোগিতা কামনা করেন।

এছাড়া গ্রাহকের মৃত্যুর পর নাম পরিবর্তনে প্রশাসনিক জটিলতা নিরসনের আহবান জানান। কেজিডিসিএল ব্যবস্থাপনা পরিচালক বিভিন্ন সমস্যার কথা লিপিবদ্ধ করেন এবং দ্রুত সমাধানের লক্ষ্যে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস প্রদান করেন। তিনি বলেন ঐ এলাকার গ্যাস সংকট শূন্যের কোটায় নিয়ে আসার জন্য নতুন প্রকল্পের অনুমোদন হয়েছে শ্রীঘ্রই টেন্ডারের মাধ্যমে পাইপ স্থাপনের কাজ শুরু হবে। তাছাড়া আগামী এপ্রিল-মে মাসের মধ্যে এল.এন.জি প্রাপ্তির আশাবাদ ব্যক্ত করে তিনি বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর সার্বক্ষণিক তদারকি ও দিকনির্দেশনায় স্বল্পতম সময়ে দেশের জনসাধারণ এল.এন.জি লাভে সক্ষম হবে যা সরকারের একটি বিরাট অর্জন যার ফলে আবাসিক অনাবাসিক এবং শিল্প কারখানার গ্যাস সংকট স্থায়ীভাবে সমাধান হবে। দেশী বিদেশী শিল্প বিনিয়োগ আশাতীতভাবে বৃদ্ধি পাবে।
এ সময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন কর্ণফুলী গ্যাস ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানী লিমিটেড (কেজিডিসিএল) এর উপ-মহাব্যবস্থাপক বিক্রয় (দক্ষিণ) ইঞ্জিনিয়ার সরওয়ার হোসেন, কর্ণফুলী গ্যাস ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানী লিঃ শ্রমিক কর্মচারী সংসদ এর সভাপতি ফরিদ আহমদ, সাঃ সম্পাদক মোঃ আসলাম, সহ-সভাপতি সিরাজুল হক পাটোয়ারী, মোঃ ইসহাক, দপ্তর সম্পাদক বাহার উদ্দিন, গ্যাস সংকট নিরসন নাগরিক কমিটির আহবায়ক হাজী হোসেন কোং, হালিশহর কলতান সংঘের সাঃ সম্পাদক মোঃ কামাল উদ্দিন, সমাজ সেবক আব্দুল আজিম, সমাজ সেবক হাজী মোঃ শাহিন, মোঃ আবুল হাসেম, মোঃ শাহজাহান, গ্যাস সংকট নিরসন নাগরিক কমিটির সদস্য সচিব মোরশেদ আলম, হাফেজ মোঃ ওকার উদ্দিন, মোঃ জুয়েল প্রমূখ।

গ্যাস সংকট শূন্যের কোটায় নিয়ে আসার জন্য নতুন প্রকল্পের অনুমোদন হয়েছে শ্রীঘ্রই টেন্ডারের মাধ্যমে পাইপ স্থাপনের কাজ শুরু হবে। তাছাড়া আগামী এপ্রিল-মে মাসের মধ্যে এল.এন.জি প্রাপ্তির আশাবাদ ব্যক্ত করে তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রীর সার্বক্ষণিক তদারকি ও দিকনির্দেশনায় স্বল্পতম সময়ে দেশের জনসাধারণ এল.এন.জি লাভে সক্ষম হবে যা সরকারের একটি বিরাট অর্জন যার ফলে আবাসিক অনাবাসিক এবং শিল্প কারখানার গ্যাস সংকট স্থায়ীভাবে সমাধান হবে। দেশী বিদেশী শিল্প বিনিয়োগ আশাতীতভাবে বৃদ্ধি পাবে।

x

Check Also

লামায় প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ৭৫০ কোমলমতি শিক্ষার্থী পেল নতুন বছরে ডায়েরী

মংছিং প্রু মার্মা, লামা (বান্দরবান) প্রতিনিধিঃ বান্দরবানে লামায় পৌরসভা দুইটি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ৭৫০ কোমলমতি শিশুদের ...