খালেদা জিয়ার ১০ম কারামুক্তি দিবস উপলক্ষ্যে নগর ছাত্রদলের আলোচনা সভায়-ডা. শাহাদাত বাংলাদেশের গণতন্ত্রের মুক্তির দিশারী আপোষহীন দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া

বাংলাদেশের প্রথম মহিলা প্রধানমন্ত্রী বিএনপির চেয়ারপার্সন দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে “মাদার অব ডেমোক্রেসি” উপাধিতে ভূষিত করে চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির সভাপতি ডা. শাহাদাত হোসেন বলেন, বাংলাদেশের গণতন্ত্রের উপর যখনই আঘাত এসেছে তখনই গণতন্ত্রের মুক্তির বার্তা নিয়ে দেশের জনগণের সামনে আশার সঞ্চার জাগিয়েছেন বাংলাদেশের তিন বারের সাবেক সফল প্রধানমন্ত্রী দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া। আশির দশক থেকে শুরু করে আজ অবধি বাংলাদেশের মানুষ গণতন্ত্র মুক্তির স্বাদ পেয়েছেন তা কেবলই বেগম খালেদা জিয়ার আপোষহীন নেতৃত্বের কারণেই সম্ভব হয়েছে। স্বৈরাচার এরশাদের বিরুদ্ধে টানা ৯ বছর রাজপথে থেকে আন্দোলন সংগ্রাম করে দীর্ঘ রাজনৈতিক পথচলার মাধ্যমে তিনি বাংলাদেশের মানুষের আপোষহীন নেত্রী হিসেবে স্বীকৃতি লাভ করেছেন। বাংলাদেশের গণতন্ত্রের মুক্তির দিশারী আপোষহীন দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াই বাংলাদেশের গণতন্ত্রের মানসকন্যা। অদ্য ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৭ বিকাল ৪ ঘটিকায় নগরীর কাজির দেউরীস্থ নাসিমন ভবন দলীয় কার্যালয়ে চট্টগ্রাম মহানগর ছাত্রদল সভাপতি গাজী মুহাম্মদ সিরাজ উল্লাহর সভাপতিত্বে নগর ছাত্রদলের এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি উপরোক্ত কথা বলেন।
ডা. শাহাদাত আরও বলেন, বেগম খালেদা জিয়া বাংলাদেশের তিন বারের সাবেক সফল প্রধানমন্ত্রী হওয়া সত্বেও ১/১১’র সামারিক জান্তারা তাঁর বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রের নীল নক্শা রচনা করে। ২০০৭ সালের অবৈধ ও বেআইনীভাবে বাংলাদেশের সর্বাধিক জনপ্রিয় নেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে গ্রেপ্তারের দুঃসাহস দেখিয়েছিল মঈনুদ্দীন-ফখরুদ্দীন গং। কিন্তু এ দেশের স্বাধীন চেতা মানুষ সেদিন ঐ অবৈধ সামরিক শাসকদের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়িয়েছিল এবং দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে দেশব্যাপী তীব্র আন্দোলন গড়ে তুলেছিল। যার ফলশ্র“তিতে মঈনুদ্দীন-ফখরুদ্দীন গংদের সাজানো নীল নকশার জাল ছিন্ন করে ২০০৮ সালের ১১ সেপ্টেম্বর সামরিক জান্তাদের বন্ধ দশা থেকে জনগণের মাঝে ফিরে আসেন জনগণের নেত্রী দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া।
এসময় অন্যান্যে মধ্যে আরও উপস্থিত ছিলেন, চট্টগ্রাম মহানগর মহিলা দলের সাধারণ সম্পাদক জেলি চৌধুরী, নগর ছাত্রদলের সহ-সভাপতি জসিম উদ্দিন চৌধুরী, জিয়াউর রহমান জিয়া, মহিলা কাউন্সিলর জেসমিনা খানম, নগর ছাত্রদল নেতা এস.এম. এমদাদ, সামিয়াত আমিন জিসান, সাখাওয়াত হোসেন শাহীন, আলিফ উদ্দিন রুবেল, কামরুল ইসলাম, জাফরুল হাসান রানা, সৌরভ প্রিয় পাল, কুতুব উদ্দিন প্রমুখ।

x

Check Also

চট্টগ্রামের নারী উদ্যোক্তারা অনেক বেশী সংগঠিত,ইপিবি মহা-পরিচালক

প্রধান প্রতিবেদক:চিটাগংডেইলি ডটকম, চট্টগ্রামের নারী উদ্যোক্তারা অনেক বেশী সংগঠিত। সহযোগিতা পেলে তারা রপ্তানিখাতে অবদান রাখতে ...