তোর এতো বড় সাহস, আমার বিরুদ্ধে কথা বলিস? সংসদ সদস্য আনোয়ারুল আজীম আনার কতৃক কালীগঞ্জে কলেজের সভাপতিকে নিজ হাতে মারধর

প্রতিনিধি ঝিনাইদহঃ
এবার নিজ দলের কর্মীকে বেধড়ক পিটিয়ে আলোচনায় উঠে এলেন ঝিনাইদহ-৪ আসনের সংসদ সদস্য আনোয়ারুল আজীম আনার। সোমবার দুপুরে কালীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের প্রস্তবিত কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক ও বারবাজার ডিগ্রি কলেজের সভাপতি শিপন মৃধাকে কিল-ঘুষি ও লাঠি দিয়ে মেরে লাঞ্চিত করেছেন। এ নিয়ে উপজেলা জুড়ে চাঞ্চল্যেও সৃষ্টি হয়েছে। এমপির হাতে দলীয় কর্মী লাঞ্চিত হওয়ার ঘটনা টক অব দ্যা কালীগঞ্জে পরিণত হয়েছে। এ বিষয়ে লাঞ্চিত শিপন মৃধা প্রতিকার চেয়ে দলীয় সভানেত্রী শেখা হাসিনা ও জেলা আওয়ামীলীগ বরাবর একটি লিখিত অভিযোগ দাখিল করেছেন।

লিখিত অভিযোগে তিনি উল্লেখ করেছেন, আমি বারবাজার ডিগ্রি কলেজের নির্বাচিত সভাপতি। দীর্ঘ ৬ বছর যাবত দায়িত্ব পালন করে আসছি। গত ৩০/০৫/২০১৭ তারিখে স্থানীয় জাতীয় সংসদ সদস্য জনাব আনোয়ারুল আজীম আনার সাহেব আমি সভাপতি থাকা সত্ত্বেও তার নিজস্ব ডিও লেটারের মাধ্যমে স্থানীয় বিএনপি সমর্থিডত মো: রবিউল ইসলামমকে বারবাজার ডিগ্রি কলেজের সভাপতির দায়িত্ব প্রদান করেছেন। আমি বিষয়টি জানার পর একজন আইনজীবীর মাধ্যমে হাইকোর্টে একটি রিট আবেদন করি। যাহার নং-৯৭৫৯/২০১৭। রীট আবেদেনের প্রেক্ষিতে হাইকোর্ট স্থগিত আদেশ প্রদান করেন।

বিষয়টি উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়ে নির্বাহী কর্মকর্তার অবগত ও আলোচনার জন্য সোমবার তার কার্যালয়ে যায়। আলোচনা শেষে শিক্ষা অফিসে এসে বিভিন্ন কর্মকর্তার সাথে মত বিনিময় করি। সে সময় জাতীয় সংসদ সদস্য মহোদয় উক্ত রুমে প্রবেশ করে। এসময় আমি দাড়িয়ে তাকে সালাম দিই। কিন্তু হঠাৎ করে সংসদ সদস্য সাহেব আমার প্রতি উত্তেজিত হয়ে বলে, তোর এতো বড় সাহস, আমার বিরুদ্ধে কথা বলিস? এই বলে আমাকে ব্যাপক ভাবে কিল-ঘুষি ও পরে লাঠি দিয়ে শারিরীক ভাবে লাঞ্চিত করে।

x

Check Also

৪২৪ স্কুলের প্রধান শিক্ষকের দায়িত্ব পাচ্ছেন সহকারীরা

আমলাতান্ত্রিক জটিলতায় দীর্ঘদিন ধরেই প্রধান শিক্ষক শূন্যতায় ভুগছে চট্টগ্রামের ৪২৪টি প্রাথমিক বিদ্যালয়। চট্টগ্রাম নগরীসহ জেলার ...