বান্দরবানের জীবন নগরে নতুন পর্যটন কেন্দ্র “নীল দিগন্ত”র উদ্ভোধন করলেন জেলা প্রশাসক দিলীপ কুমার বনিক

কৌশিক দাশ (বান্দরবান প্রতিনিধি) :এখানের চারিদিকে অবারিত সবুজ পাহাড়, যে দিকে চোখ যায় হৃদয় জুড়িয়ে যায়। (১৫জুলাই) শনিবার বিকালে থানচির জীবন নগরের সবচেয়ে আকর্ষণীয় স্থানে নব নির্মিত পর্যটন কেন্দ্র “নীল দিগন্ত”র উদ্ভোধন কালে জেলা প্রশাসক দিলীপ কুমার বণিক বক্তব্যে এসব কথা বলেন। এসময় তিনি বলেন, আমরা এ সুন্দর দৃশ্যগুলোকে বিশ্ব বাসির কাছে তুলে ধরার জন্য বান্দরবানে নতুন নতুন পর্যটন স্পট স্থাপন করছি। বিশেষ করে পর্যটকদের সুযোগ সুবিধা দেয়া এবং স্থানীয় অর্থনৈতিক কর্মকান্ডকে আরো বেশি গতিশীল করার জন্য জেলা প্রশাসনের এই প্রয়াস অব্যাহত থাকবে।
জেলা প্রশাসক আরো বলেন, বান্দরবানের অর্থনীতির প্রধান উৎসই হচ্ছে পর্যটন। পর্যটনকে যতবেশি আর্কষণীয় করা যাবে, পর্যটকদেরকে যত বেশি সুযোগ সুবিধা দেয়া যাবে, ততই এ এলাকায় পর্যটকদের আগমন বৃদ্ধি পাবে। সে লক্ষ্যেই আমরা এখানে পর্যটন কেন্দ্র গড়ে তুলছি। যে সমস্ত স্থান গুলো খুবই আকর্ষণীয় এবং চারিদিকের দৃশ্য দৃষ্টিগোচর হয়, সে সমস্ত স্থান যাতে করে পর্যটকরা উপভোগ করতে পারে, সে লক্ষ্যেই উপজেলা প্রশাসনের সহায়তায়, জেলা প্রশাসনের সহায়তায় এবং বাংলাদেশ পর্যটন কর্পোরেশনের সহায়তায় আমরা আজ “নীল দিগন্ত” পর্যটন কেন্দ্রটিকে নতুন ভাবে গড়ে তুলেছি।
এসময় তিনি বান্দরবানের ডিম পাহাড়, নাফা কুম এবং রেমাক্রীসহ বিভিন্ন স্থানে আরো নতুন নতুন পর্যটন কেন্দ্র গড়ে তোলার বেশ কিছু পরিকল্পনার কথা জানান।
নব নির্মিত পর্যটন কেন্দ্র “নীল দিগন্ত”র উদ্ভোধন কালে এসময় বান্দরবানের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) মফিদুল আলম, থানচি উপজেলা চেয়ারম্যান ক্যাহ্লাচিং মার্মা,থানচি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর আলম,পর্যটনের দায়িত্বে থাকা নেজারত ডেপুটি কালেক্টর হোসাইন মোহাম্মদ আল মুজাহিদসহ প্রশাসনের বিভিন্ন কর্মকর্তা ও স্থানীয় কর্মরত সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিলেন।
বান্দরবান জেলা প্রশাসনের নেজারত ডেপুটি কালেক্টর হোসাইন মোহাম্মদ আল মুজাহিদ জানান, বান্দরবান জেলা প্রশাসনের ও থানচি উপজেলা প্রশাসনের যৌথ তত্বাবধানে এই নতুন পর্যটন কেন্দ্রটি পরিচালিত হবে । প্রাথমিকভাবে উদ্ধোধন করা হলে ও এখানে পর্যটকদের জন্য নির্মিত হবে একটি মান সম্মত খাবার রেস্টুরেন্ট।তিনি আরো জানান, পুরো এই পর্যটন কেন্দ্রের বিভিন্ন অংশে প্রচুর পরিমান বৃক্ষরোপন করা হবে, আর পর্যটকেরা যাতে পাহাড়ের পরিবেশে প্রাকৃতিক সৌন্দর্য্য উপভোগ করতে পারে তার জন্য নির্মাণ করা হবে আধুনিক বিভিন্ন স্থাপনা।
এদিকে নতুন এই পর্যটন কেন্দ্র উদ্ধোধনের ফলে এই সড়কে পর্যটকদের জন্য নতুন একটি পর্যটন স্পট বৃদ্ধি পাওয়ায় পর্যটকেরা জেলা প্রশাসনের এই কার্যক্রমকে সাধুবাদ জানান।

x

Check Also

চট্টগ্রাম সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি রিয়াজ হায়দারের উপর হামলাকারীদের শাস্তির দাবী

মোঃ শাহীন আলম খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি : চট্টগ্রাম সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি রিয়াজ হায়দার চৌধুরীর উপর হামলাকারীদের ...