খাগড়াছড়িতে নতুন ৫ গ্রাম প্লাবিত, পানিবন্দী সহস্রাধিক পরিবার

খাগড়াছড়িতে পাহাড়ি ঢলে সৃষ্ট বন্যায় চেঙ্গী ও মাঈনী নদীর পানি বৃদ্ধি পেয়ে প্লাবিত ১৫টি গ্রামের পানি কমে গেছে। তবে জেলার দীঘিনালা উপজেলার মেরুং ইউনিয়নের ৫টি গ্রাম নতুন করে প্লাবিত হয়েছে। এতে পানিবন্দী হয়ে পড়েছেন এসব এলাকার হাজারেরও বেশি পরিবার। আবার অকেজো হয়ে পড়েছে যোগাযোগ ব্যবস্থাও।

পাহাড়ি ঢলে সৃষ্ট বন্যা ও সোমবার টানা বৃষ্টির ফলে মাঈনী নদীর পানি বৃদ্ধি পেয়ে নতুন করে এসব নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে বলে জানিয়েছেন স্থানীয়রা।

তারা আরও জানান, পানিতে শহরের বাণিজ্য খ্যাত মেরুং বাজারও পানিতে তলিয়ে গেছে। ফলে নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্য কিনতে বেশ বেগ পোহাতে হচ্ছে তাদের। এছাড়া পানির কারণে পার্শ্ববর্তী লংগদু উপজেলার সঙ্গে দীঘিনালা উপজেলার যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে।

এর আগে, সোমবার চেঙ্গী ও মাঈনী নদীর পানি বৃদ্ধি পেয়ে খাগড়াছড়ি পৌর শহরের সবজি বাজার, গরু বাজার পানিতে তলিয়ে যায়। গঞ্জপাড়া এলাকার সাথে যোগাযোগ সড়কটি পানিতে ডুবে গিয়ে ওই এলাকার সাথে জেলা সদরের যোগাযোগ বন্ধ হয়ে যায়।

এছাড়াও পৌর শহরের শান্তিনগর, ফুটবিল, পুরাতন জীপ স্টেশন এলাকা, রুখই চৌধুরী পাড়া, শব্দমিয়াপাড়া, গঞ্জপাড়া, উত্তর গঞ্জপাড়া, মুসলিমপাড়া, গোলবাড়ি, বটতলীসহ প্রায় আরও কয়েকটি গ্রামের কয়েক হাজার মানুষ পানিবন্দী হয়ে পড়ে। তবে এসব অঞ্চলের পানি কমে গেছে।

x

Check Also

কর্ণফুলীতে বর্তমান মেম্বারের হামলায় সাবেক মেম্বার সহ আহত-১০

কর্নফুলী প্রতিনিধি:১৯অক্টোবর গতকাল রাত্র আনুমানিক সাড়ে ৮টা হতে ৯টার দিকে কর্ণফুলী উপজেলার ডাঙ্গার চর ইউনিয়নের ...