মুসা ইব্রাহীমকে উদ্ধারে ফের সোমবার সকালে যাবে হেলিকপ্টার

পর্বতারোহী মুসা ইব্রাহীম ও তার সহআরোহীদের উদ্ধারে সোমবার (১৯ জুন) সকালে দ্বিতীয়বারের মতো হেলিকপ্টার পাঠানো হবে ওশেনিয়ার সর্বোচ্চ পর্বতে। এখন কেবল ভালো আবহাওয়ার অপেক্ষা বলে বাংলা ট্রিবিউনকে জানিয়েছেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মোহাম্মদ শাহরিয়ার আলম। এরই মধ্যে তাদের কাছে কিছু খাবার পৌঁছেছে বলেও জানান তিনি। গত শনিবার (১৭ জুন) সন্ধ্যা থেকে জানা যায়, বাংলাদেশের অন্যতম পর্বতারোহী মুসা ইব্রাহীম ওশেনিয়ার সর্বোচ্চ পর্বতে দুই সহআরোহীকে নিয়ে আটকে পড়েছেন।
রবিবার (১৮ জুন) সন্ধ্যায় এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত মুসার সহযাত্রী ভারতীয় নাগরিক সত্যরূপ সিদ্ধান্তের স্যাটেলাইট ফোন থেকে পাওয়া বার্তা বলছে, তারা পরিত্যক্ত কিছু খাবারের সন্ধান পেয়েছেন। সেগুলোই তাদের অমৃতসমান। দুপুরে পাঠানো এক বার্তায় তিনি তাদের উদ্ধার প্রচেষ্টার জন্য দূতাবাসকে ধন্যবাদও জানিয়েছেন।
.খাবার পাওয়ার পরে জানিয়েছে সত্যরুপ
এর আগে রবিবার সকালে আরেক স্যাটেলাইট বার্তায় সুষমা সরাজকে টুইট করার পরামর্শ দিয়ে বন্ধুদের অনুরোধ করেন সত্যরূপ। ওই বার্তায় তিনি নিজেদের অবস্থানের চিত্রও দিয়েছেন। বার্তাটি পাওয়ার পর থেকে তার বন্ধুরা ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজকে একাধিক টুইট করেছেন।
.মুসা ও তার সহযাত্রীদের সম্ভাব্য অবস্থান
ওশেনিয়া (পাপুয়া নিউগিনি, ইন্দোনেশিয়া) মহাদেশের সর্বোচ্চ পর্বত মাউন্ট কার্সটেঞ্জ পিরামিড জয় করার জন্য বাংলাদেশ ও ভারতের তিন সদস্যের একটি দলের নেতৃত্ব দিচ্ছেন মুসা ইব্রাহীম। পর্বতটি জয় করতে গিয়ে দলটি প্রতিকূল আবহাওয়ার মুখোমুখি হয়ে বেজ ক্যাম্পে আটকা পড়ে আছে তিন দিন ধরে। খাবার সংকটে ভুগছে পুরো টিম। মুসার স্ত্রী উম্মে সরাবন তহুরা রবিবার বিকালে বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘এখনও ওদের উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি।’
এর আগে শনিবার রাতে মুসা ইব্রাহীমসহ অন্যদের আটকে পড়ার খবর বাংলা ট্রিবিউনকে নিশ্চিত করেন মুসার স্ত্রী। তিনি বলেন, ‘মুসার সঙ্গে সত্যরূপ সিদ্ধান্ত ও নন্দিতা রয়েছেন। তারা সবাই বেজ ক্যাম্পে আটকে পড়েছেন এবং তাদের কাছে খাবার নেই বলে জানা গেছে।’
শাহরিয়ার আলমের ফেসবুক স্ট্যাটাস
ঘটনা জানার পর থেকেই মুসা ও তার দলের সঙ্গে যোগাযোগ করার চেষ্টা করেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মোহাম্মদ শাহরিয়ার আলম। শনিবার দিবাগত রাতে ফেসবুকে এক স্ট্যাটাসে প্রতিমন্ত্রী লিখেন, ‘মুসা ইব্রাহিমের সঙ্গে আমার যোগাযোগ হয়েছে তার দলের একজন ভারতীয় আরোহীর স্যাটেলাইটের মাধ্যমে। তারা চার দিন হলো আটকে রয়েছেন, খাবার শেষ। আমাদের অ্যাম্বেসি একটু আগে জানিয়েছে, তিমিকাতে হেলিকপ্টার প্রস্তুত আছে। আবহাওয়া ভালো হলেই তারা তাদের আনতে যাবে। আশা করি আজ (রবিবার) সকালেই।’ আসিয়ান দফতর, বাংলাদেশি দূতাবাস ও ভারতীয় দূতাবাস মুসা ইব্রাহীম ও তার দলকে উদ্ধারের কার্যক্রম তদারকি করছে বলেও স্ট্যাটাসে উল্লেখ করেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী।
পরে শাহরিয়ার আলমের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে রবিবার বিকালে তিনি বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘আবহাওয়া অনুকূলে না থাকায় রবিবার তাদের উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি। সোমবার সকালে আবারও তাদের উদ্ধারের চেষ্টা করা হবে।’ সারাদিনই নির্দিষ্ট সময় পর পর ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে তিনি মুসার পরিস্থিতি জানানোর চেষ্টা করছেন বলে জানান।

এদিক, মুসার বড় বোন নূর আয়েশা শনিবারই ইন্দোনেশিয়ায় বাংলাদেশি রাষ্ট্রদূতের সহায়তা চেয়েছেন। সেখান থেকে তাকে জানানো হয়ছিল, সোমবার পাপুয়া নিউগিনির সঙ্গে তারা যোগাযোগ করবেন।
রবিবার সকালের বার্তাউল্লেখ্য, মুসা ইব্রাহীম প্রথম বাংলাদেশি হিসেবে মাউন্ট এভারেস্ট জয় করেছেন। তিনি ২০১০ সালের ২৩ মে বাংলাদেশ সময় ভোর ৫টা ৫ মিনিটে এভারেস্ট শৃঙ্গ জয় করেন।
পরে ২০১১ সালের ১৩ সেপ্টেম্বর আফ্রিকা মহাদেশের সর্বোচ্চ পর্বত কিলিমাঞ্জারোর চূড়া জয় করেন মুসা। এই অভিযানে তার সঙ্গী ছিলেন নিয়াজ মোরশেদ পাটওয়ারী ও এম এ সাত্তার। তবে ১৯ হাজার ৩৪০ ফুট উচ্চতার কিলিমাঞ্জারো পর্বতের চূড়ায় বাংলাদেশের পতাকা উড়িয়েছেন কেবল মুসা ও নিয়াজ।
ওশেনিয়া মহাদেশের সর্বোচ্চ পর্বত মাউন্ট কার্সটেঞ্জ পিরামিড জয় করার জন্য গত ২৯ মে ইন্দোনেশিয়া থেকে যাত্রা শুরু করেন মুসা। বালিতে তার সঙ্গে যোগ দেন সত্যরূপ ও নন্দিতা। এ অভিযানের আনুষ্ঠানিক নাম ‘বাংলাদেশ-ইন্ডিয়া ফ্রেন্ডশিপ এক্সপেডিশন টু মাউন্ট কার্সটেঞ্জ পিরামিড’।

x

Check Also

ঈদের দিন গণভবনে শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন প্রধানমন্ত্রী

পবিত্র ঈদুল ফিতরের আনন্দ ভাগাভাগি করে নিতে ঢাকায় থাকছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ঈদের দিন সকাল ...