স্ট্রিট ফুডের স্বাদ বিকশিত করতে পারে পর্যটনকে: রাশেদ খান মেনন

বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটনমন্ত্রী রাশেদ খান মেননের মতে, পর্যটন ও স্ট্রিট ফুড একই সুতোয় গাঁথা। মঙ্গলবার (২ মে) সকালে রাজধানীর শাহবাগস্থ কেন্দ্রীয় গণগ্রন্থাগারের শওকত ওসমান মিলনায়তনে স্বাস্থ্যসস্মত খাবার বিষয়ক সচেতনতা ও প্রশিক্ষণ কর্মসূচির উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে পর্যটনের বিকাশে স্ট্রিট ফুডের ওপর গুরুত্বারোপ করেন তিনি।

রাশেদ খান মেনন বলেন,‘বেশিরভাগ পর্যটক সাশ্রয়ী মূল্যে রকমারি খাবার পেতে বেছে নেন স্ট্রিট ফুড। তাই পৃথিবীর সবখানেই স্ট্রিট ফুডের স্বাদ বিকশিত করতে পারে পর্যটনকে। একই সঙ্গে দেশের ইতিবাচক ভাবমূর্তি প্রতিষ্ঠায়ও ভূমিকা রাখে এসব খাবার।’

পর্যটনমন্ত্রী জানান, ঢাকায় প্রতিদিন প্রায় ৬০ লাখ মানুষ স্ট্রিট ফুডের স্বাদ নিচ্ছেন। তিনি বলেন, ‘স্ট্রিট ফুড বিক্রেতারা একদিকে স্বল্পমূল্যে খাবার সরবরাহ করেন। অন্যদিকে গ্রামীণ অর্থনীতি বিকাশে নীরবে অবদান রেখে চলেছেন।’

এদিকে স্বাস্থ্যসস্মত খাবার বিষয়ক সচেতনতা ও প্রশিক্ষণ কর্মসূচিতে অংশ নিচ্ছেন ১০০ জন স্ট্রিট ফুড বিক্রেতা। জানা গেছে, পর্যায়ক্রমে ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন শহরের স্ট্রিট ফুড বিক্রেতাদেরও এ প্রশিক্ষণের আওতায় আনা হবে।

বিটিবির পরিচালক নিখিল রঞ্জন রায়ের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয়ের সচিব এসএম গোলাম ফারুক, জাতীয় দক্ষতা উন্নয়ন বোর্ডের চেয়ারম্যান এবিএম খুরশিদ আলম, বিপিসি’র চেয়ারম্যান অপরূপ চৌধুরী, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্যুরিজম অ্যান্ড হসপিটালিটি বিভাগের চেয়ারম্যান ড. শাকের আহমেদ, পর্যটন বিচিত্রা সম্পাদক মহিউদ্দিন হেলাল প্রমুখ।

x

Check Also

ঈদে মিলাদুন্নবী (দঃ)হচ্ছে মুসলিম মিল্লাতের ঐক্যের প্রতীক,সূফি মিজান

হোসেন বাবলা:১৯নভেম্বর বন্দর নগরীতে নগর গাউছিয়া কমিটির উদ্যোগে পবিত্র মাহে রবিউল আউয়াল উপলক্ষে স্বাগত জানিয়ে ...