অ্যাপলের ‘রাজকীয়’ ভাব শেষ!

আইফোন-ভক্তদের আশা মেটাতে পারেনি অ্যাপল। এখন চীনের বিভিন্ন ব্র্যান্ডের সঙ্গে লড়তে হচ্ছে। অ্যাপল কী আর সেই অ্যাপল আছে? বাজার বিশ্লেষকেরা বলছেন, অ্যাপল তার জৌলুস হারিয়েছে। এর ফলে ব্র্যান্ড হিসেবে অ্যাপলের দাম কমে গেছে।

পাঁচ বছর ধরে বিশ্বের সবচেয়ে দামি ব্র্যান্ডের মর্যাদা ছিল অ্যাপলের। এবারে অ্যাপলকে হটিয়ে সে জায়গা দখল করে নিয়েছে অ্যালফাবেট ইনকরপোরেশনের অধীন গুগল।

‘ব্র্যান্ড ফাইন্যান্স গ্লোবাল ৫০০’-এর করা সাম্প্রতিক তালিকায় এ রদবদল হয়েছে। তালিকায় অ্যাপলের পরের অবস্থানে পর্যায়ক্রমে রয়েছে আমাজন, এটিঅ্যান্ডটি, মাইক্রোসফট, স্যামসাং, ভেরিজন, ওয়ালমার্ট, ফেসবুক ও আইসিবিসি।

ব্র্যান্ড ফাইনান্সের বিশ্লেষকেদের মতে, অ্যাপল তার গ্রাহক সুনামের সঙ্গে বঞ্চনা করেছে। উপাদানগত পরিবর্তন আনার কথা বলা হলেও গ্রাহকদের বারবার আশাহত করেছে। অ্যাপলের যেখানে লোকসান সেখানেই গুগলের লাভ হয়েছে।

ব্র্যান্ড ফাইনান্সের তথ্য অনুযায়ী, গুগলের ব্র্যান্ড মূল্য ধরা হয়েছে ১০৯ দশমিক ৪৭ বিলিয়ন মার্কিন ডলার আর অ্যাপলের ব্র্যান্ড মূল্য ১০৭ দশমিক ১৪ বিলিয়ন মার্কিন ডলার।

অ্যাপলের ব্র্যান্ড মূল্য কমে যাওয়ার কারণ হিসেবে নতুন পণ্য থেকে আসা আয় কম হওয়ার কথাও বলা হয়েছে। এ ক্ষেত্রে অ্যাপল ওয়াচের উদাহরণ দেওয়া হয়েছে। এ ছাড়া অ্যাপল এখন তার ‘রাজকীয়তা’ হারিয়েছে। অন্যান্য ব্র্যান্ডের সঙ্গে প্রতিযোগিতা করতে হচ্ছে। এর আগে শুধু স্যামসাংয়ের সঙ্গে প্রতিযোগিতা থাকলেও এখন চীনা ব্র্যান্ড হুয়াওয়ে, ওয়ানপ্লাস স্মার্টফোন অ্যাপলের সঙ্গে পাল্লা দিচ্ছে।

এর আগে ২০১১ সালে বিশ্বের সবচেয়ে দামি ব্র্যান্ডের খেতাব পেয়েছিল গুগল। এবারে শীর্ষ পর্যায়ে উঠে আসার ক্ষেত্রে গুগলের সার্চ বা অনুসন্ধান ব্যবসাকে গুরুত্বপূর্ণ বলে মনে করা হয়েছে। ২০১৬ সালে সার্চ ব্যবসা থেকে বিজ্ঞাপন আয় ২০ শতাংশ বেড়েছে। প্রতি ক্লিকে খরচ কমলেও অনলাইন বিজ্ঞাপন বাড়ার বিষয়টি গুগলের জন্য ইতিবাচক হয়েছে। এ ছাড়া ২০১৬ সালে পিক্সেল ও পিক্সেল এক্সএল নামে স্মার্টফোন এনে বাজারে ঢুকেছে গুগল। এ ফোন বাজারে ভালো বিক্রি হয়েছে।

তৃতীয় অবস্থানে থাকা আমাজনের গত বছরে ব্যান্ড মূল্য ৫৩ শতাংশ বেড়েছে। রিটেইল বাজারে এগিয়ে চলছে প্রতিষ্ঠানটি। আগামী দেড় বছরে এক লাখ কর্মসংস্থান তৈরির লক্ষ্য নিয়ে কাজ করছে প্রতিষ্ঠানটি।
গত বছরে ৮২ শতাংশ ব্র্যান্ড মূল্য বাড়িয়ে সেরা ১০-এর তালিকায় উঠে এসেছে ফেসবুক।

Loading Facebook Comments ...

Leave a Reply

x

Check Also

সংবাদ প্রতিক্রিয়াঃ হাছান মাহমুদ শ্রেষ্ঠ বেয়াদব তাতে কোন সন্দেহ নাই, কিন্তু তিন বছর আগের সংবাদ আজ ২০১৭ সালে আবার কেন প্রকাশ করতে গেল যুগান্তর !

সংবাদ প্রতিক্রিয়াঃ হাছান মাহমুদ শ্রেষ্ঠ বেয়াদব তাতে কোন সন্দেহ নাই, কিন্তু তিন বছর আগের সংবাদ ...