নিউইয়র্ক বিমানবন্দরে বাংলাদেশি শিক্ষার্থী আটক

যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে জন এফ কেনেডি বিমানবন্দর থেকে আটক করা হয়েছে এক বাংলাদেশি শিক্ষার্থীকে। মানবাধিকার বিষয়ক আইনজীবী ইমান বোকদুম জানান, যুক্তরাষ্ট্রের ডিপার্টমেন্ট অব হোমল্যান্ড সিকিউরিটি শিক্ষার্থীকে গ্রেফতার করে। স্টুডেন্ট ভিসায় এই শিক্ষার্থী যুক্তরাষ্ট্রে এসেছিল বলে জানান তিনি।
মানবাধিকার বিষয়ক এই আইনজীবী তার ফেসবুক পোস্টে জানান, সে আইনসিদ্ধ ভাবেই এই দেশে (যুক্তরাষ্ট্রে) প্রবেশ করেছিল। তার কাছে এফ১ স্টুডেন্ট ভিসা ছিল। কিন্তু তারপরও ৩০ ঘণ্টা ভ্রমণ করে আসা এই যাত্রীকে আটকে জিজ্ঞাসাবাদ করে কাস্টম অ্যান্ড বর্ডার প্রোটেকশন (সিবিপি) নিউজ। তারপর তাকে মারধর করবে বলে ভয় দেখায়। শেষ পর্যন্ত তার শরীর তল্লাশি করা হয়।
তিনি শিক্ষার্থীর নাম প্রকাশ না করলেও তাকে রক্ষার জন্য আইনজীবীরা কাজ করছেন বলে জানিয়েছের। একটি ফেসবুক পোস্টে বোকাডম জানান, এই শিক্ষার্থী বারবার বলছিল, এখানে এভাবে আটক হওয়ার থেকে আমার মরে যাওয়াটাই ভাল ছিল।
এই আইনজীবী আরো বলেন, এখন পর্যন্ত ৭ বার আত্মহত্যা করার কথা বলেছে আমাকে। আমি তার মোবাইলে ১০০ ডলার রিচার্জ করে দিয়েছি। কেননা সে আমাকে কিছু সময় পরপর ফোন করছে। আটক হওয়ার বিষয়টা মেনে নিতে পারছে না এই ছেলেটি। সে ফোন করে কান্নাকাটি করছে এবং বারবার আত্মহত্যা করার কথা বলছে। এটা সত্যিই হৃদয়বিদারক।
তিনি আরো বলেন, তাকে নিউ জার্সির সবচাইতে বাজে ডিটেনশন সেন্টারে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। সেখানেই অবস্থান করছে ছেলেটি।
বাংলাদেশি এই শিক্ষার্থীর প্যারল শুনানি হওয়া উচিত ছিল আরো অনেক আগেই। বর্তমানে সেই চেষ্টাই করছেন বোকদুম।
Loading Facebook Comments ...

Leave a Reply

x

Check Also

চীনে পৌঁছলেন বাংলাদেশের সুন্দরী জেসিয়া

এক মাসের অভিযাত্রায় গতকাল ১৯ অক্টোবর দিবাগত রাত ১২টা ৫০ মিনিটে ঢাকা থেকে চীনের উদ্দ্যেশ্যে ...